Sylhet Express

তাহিরপুরে তৃতীয় শ্রেনীর ছাত্রী ধর্ষিত,ভারতে পালিয়ে যাবার সময় ধর্ষনকারী আটক

0 ১,৩২৪

সুনামগঞ্জ প্রতিনিধি::   সিলেটের সুনামগঞ্জের তাহিরপুর উপজেলায় দিন মজুর পরিবারের স্কুল পড়ুয়া তৃতীয় শ্রেনীর ছাত্রী (৮) ধর্ষনের শিকার হয়েছে। এ ঘটনার ৭ঘন্টা পর ভারতে পালিয়ে যাবার সময় তাহিরপুর উপজেলার সীমান্ত এলাকা থেকে ধর্ষনকারী কে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। সে উপজেলার জয়নাল আবেদিন কলেজের একাদশ শ্রেনীর ছাত্র ও উজান তাহিরপুর গ্রামের আব্দুল আজিজের ছেলে আবিদ হাসান রিমন মিয়া (১৯)।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানাযায়,উপজেলার জয়নাল আবেদিন কলেজের একাদশ শ্রেনীর ছাত্র ও উজান তাহিরপুর গ্রামের আব্দুল আজিজের ছেলে রিমন মিয়া গতকাল শুক্রবার বিকাল সাড়ে ৬টার সময় একেই গ্রামের জনৈক ঐ স্কুল পড়ুয়া ছাত্রী কে নিজ বাড়িতে একা পেয়ে জোঁর পূর্বক ধর্ষন করে। ঐ সময় মেয়েটির আর্তচিৎকারে স্থানীয় লোকজন এগিয়ে আসার পূর্বে ধর্ষনকারী রিমন মিয়া পালিয়ে যায়। গুরুত্বর অবস্থায় ধর্ষনের শিকার ঐ ছাত্রীকে প্রথমে তাহিরপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে পরে সুনামগঞ্জ সদর হাসপাতালে ভর্তি করে চিকিৎসা দেওয়ার পর আরো উন্নত চিকিৎসার জন্য রাত ১০টায় সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরন করা হয়েছে।

এঘটনায় খবর পেয়ে পুলিশ ধর্ষনকারীর পিতা আব্দুল আজিজ কে সন্ধ্যায় আটক করে থানায় নিয়ে যায়। পরে রাত ১টার সময় ধর্ষনকারী ভারতে পালিয়ে যাওয়ার সময় গোপন সংবাদের বিত্তিত্বে সীমান্ত এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করে পুলিশ। এব্যাপারে তাহিরপুর থানার ওসি নন্দন কান্তি ধর এঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান,ঘটনার পর পর পুলিশ ধর্ষনকারী রিমনের বাবা আব্দুল আজিজকে সন্ধ্যায় আটক করা হয়। ধর্ষনকারীকে গ্রেফতার করার জন্য জোরালো অভিযান চালিয়ে রাত ১টার সময় উপজেলার সীমান্ত এলাকার চরগাও এলাকা থেকে রিমন কে গ্রেফতার করা হয় রাতেই থানা নিয়ে আসা হয়। এ ব্যাপারে নির্যাতিত শিশুর চাচা আফছার উদ্দিন বাদী হয়ে নারী ও শিশু নির্যাতন আইনে মামলা তাহিরপুর থানায় মামলা দায়ের করে। মামলা নং ১৭। তারিখ-২৪,০২,১৮ইং। আসামী আবিদ হাসান রিমন মিয়া কে সকাল সাড়ে ১২টায় সুনামগঞ্জ জেল হাজতে প্রেরন করা হয়েছে।

মন্তব্য
Loading...