Sylhet Express

পাঁচ লক্ষাধিক রোহিঙ্গা পালানোর কথা স্বীকার মিয়ানমারের

0 ১,০০৮

গত বছরের ২৫ আগস্টের পর থেকে প্রায় পাঁচ লাখ ৩৫ হাজার মুসলমান মংডু ছেড়ে পালিয়ে গেছে বলে স্বীকার করেছে মিয়ানমার। বার্মা সরকারের পক্ষ থেকে এই প্রথমবারের মতো এতো বিপুল সংখ্যক রোহিঙ্গা মুসলমান পালিয়ে যাওয়ার কথা স্বীকার করা হলো।

শুক্রবার এক সংবাদ সম্মেলনে একথা জানিয়েছেন মিয়ানমারের রাখাইন প্রাদেশিক সরকারের সচিব টিন মং সোয়ে। খবর বিবিসির।

খবরে বলা হয়েছে, ‘রাখাইন রাজ্য সরকারের সচিব বলেছেন, পাঁচ লাখেরও বেশি মুসলিম রিফিউজি বাংলাদেশে পালিয়ে গেছে। গত বছরের আগস্ট মাসের শেষ দিকে আরসা (আরাকান রোহিঙ্গা স্যালভেশন আর্মি) এর আক্রমণের পর তারা পালিয়ে যায়।’

রাখাইনের আঞ্চলিক সরকারের সচিব টিন মং দাবি করেন, গত বছরের বছর ২৫শে আগস্টের আগে রাখাইনে ‘প্রায় ১০ লাখ পাঁচ হাজার মুসলিম’ ছিল। এখনো রাখাইনে প্রায় চার লক্ষ ৭০ হাজার মুসলিম রয়েছে।

কিন্তু জাতিসংঘ এবং বাংলাদেশ সরকার যে হিসেব দিচ্ছে, তার তুলনায় পালিয়ে যাওয়া রোহিঙ্গাদের বিষয়ে মিয়ানমার সরকারের হিসেব প্রায় দেড় লক্ষ কম।

বাংলাদেশ সরকারের শরণার্থী ত্রাণ ও প্রত্যাবাসন বিষয়ক কমিশনার আবুল কালাম বলেন, গত ছয় মাসে বাংলাদেশে কত রোহিঙ্গা পালিয়ে এসেছে, সেটি শুধু বাংলাদেশ সরকারই হিসেবে করেনি, বরং জাতিসংঘসহ বিভিন্ন সংস্থাও হিসেব করেছে এবং সবাই ছয় লাখ ৯২ হাজার শরণার্থীর বিষয়ে একমত।

রোহিঙ্গা সঙ্কট নিয়ে মিয়ানমার সরকারের ওপর গত ছয় মাসে আন্তর্জাতিক চাপ বেড়েছে। রোহিঙ্গাদের ফেরত পাঠানোর বিষয়ে বাংলাদেশ ও মিয়ানমার এরই মধ্যে একটি চুক্তিও করেছে, কিন্তু প্রত্যাবাসনের মূল কাজটিই এখনও শুরু হয়নি।

জাতিসংঘের হিসেবের সঙ্গে মিয়ানমার সরকারের হিসেবে বড় পার্থক্য থাকলেও ঠিক কত মানুষ পালিয়ে গেছে সে বিষয়ে দেশটির সরকার আগে কোনো সুনির্দিষ্ট তথ্য দেয়নি।

মন্তব্য
Loading...